1. techostadblog@gmail.com : Fit It : Fit It
  2. mak0akash@gmail.com : AL - AMIN KHAN : AL - AMIN KHAN
  3. admin@sangbadbangla.com : admin :
রবিবার, ২০ জুন ২০২১, ০৯:৫৬ অপরাহ্ন

নেপাল সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশের চেষ্টায় জঙ্গিরা, টার্গেট অমিত শাহ!

Reporter Name
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ২৯ জুন, ২০২০
  • ১১৮ বার পঠিত

লাদাখে চীনের সঙ্গে যুদ্ধ পরিস্থিতি চলছে। এরই মধ্যে ভারতে বড় ধরনের হামলার পরিকল্পনা নিয়েছে পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গিরা। টার্গেট বিহার, নির্বাচনের আগে নেপাল সীমান্ত দিয়ে সেখানে জঙ্গিদের প্রবেশ করিয়ে বড়সড় হামলার ছক কষছে পাকিস্তানের গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই। এমনটাই দাবি ভারতীয় গণমাধ্যমের।

আর এই কাজে তারা ব্যবহার করতে চাইছে লস্কর-ই-তৈয়্যেবা এবং তালেবানের প্রশিক্ষিত জঙ্গিদের। হিটলিস্টে আছে খোদ ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ’র নাম। এমনটাই দাবি ন্যাশনাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সির (এনআইএ)। যদিও সরকারিভাবে এখনো গোয়েন্দা সংস্থাটি এ বিষয়ে এখনো কিছু জানায়নি।

সম্ভাব্য জঙ্গি হামলা ঠেকাতে কাশ্মীরে ব্যাপক ধরপাকড় চালাচ্ছে ভারতীয় সেনারা। তল্লাসি অভিযানে নিয়মিতই মারা পড়ছে জঙ্গি সংগঠনগুলোর স্থানীয় নেতারা। তাই এবার ঘুরপথে ভারতে হামলা করার ছক কষছে পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গি সংগঠনগুলো। আর সেই উদ্দেশ্যে নেপাল সীমান্তকে ব্যবহার করতে চাইছে আইএসআই।

মানচিত্র বিতর্কে এই মুহূর্তে নেপাল সরকারের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক মোটেই ভাল নয়। তাই জঙ্গিরা নেপাল হয়ে ভারতে প্রবেশ করাটা অনেকটা নিরাপদ মনে করছে। সূত্রের খবর, নেপাল সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশ করার জন্য অপেক্ষায় আছে বেশ কয়েকজন তালেবান এবং জইশ-ই মোহাম্মদ জঙ্গি। গোয়েন্দা সুত্রে সেই খবর পেয়েই বিহারজুড়ে জারি করা হয়েছে হাই অ্যালার্ট। গোটা রাজ্যের নিরাপত্তা ব্যবস্থা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

বিহার স্পেশ্যাল ব্রাঞ্চের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এনআইএ সম্ভাব্য জঙ্গি হামলা নিয়ে সতর্ক করেছে তাদের। তার পরই রাজ্যজুড়ে হাই অ্যালার্ট জারি করা হয়েছে। এনআইএ সুত্র বলছে, আইএসআই তালেবান এবং জইশ-ই-মোহাম্মদ জঙ্গিদের নিয়ে ৫-৬ জনের একটি দল তৈরি করেছে। এদের হিটলিস্টে সবার উপরে নাম আছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ’র। অন্যান্য বিজেপি নেতাদের নামও আছে হিটলিস্টে। বিহার পুলিশকে গোয়েন্দা সংস্থার পক্ষ থেকে এমনই সতর্কবার্তা দেওয়া হয়েছে।

নির্বাচনের আগে বিহারে ভিভিআইপিদের যাতায়াত বাড়বে। পুলিশকে সেদিকে সতর্ক দৃষ্টি দিতে বলা হয়েছে। যে কোনো সন্দেহভাজন ব্যক্তির গতিবিধির উপর নজর রাখা এবং নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে গোয়েন্দা সংস্থার পক্ষ থেকে।

সূত্র- সংবাদ প্রতিদিন।

এই পোস্টটি সমাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© ২০১৯, সংবাদ বাংলা
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: The IT King