1. techostadblog@gmail.com : Fit It : Fit It
  2. mak0akash@gmail.com : AL - AMIN KHAN : AL - AMIN KHAN
  3. admin@sangbadbangla.com : admin :
শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ০২:১০ অপরাহ্ন

আবাসিক হোটেলে প্রেমিক যুগল ধরা, ১৫ ঘন্টা পর বিয়ে

Reporter Name
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ৪৪৫ বার পঠিত

দিনাজপুরের আবাসিক হোটেল থেকে প্রেমিক যুগলকে আটক করেছে ১৫ ঘন্টা পর কোতয়ালী থানায় ৮ লক্ষ টাকার দেনমোহরে বিয়ে দেয়া হয়েছে। বুধবার বিকাল ৩ টার কোতয়ালী থানায় বিয়ের কাজ সম্পন্ন হওয়ার পর পুলিশ ৫৪ ধারা গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে প্রেরন করেছে। কোতয়ালী থানায় স্থানীয গণ্যমান্য, জনপ্রতিনিধি ও পুলিশের উপস্থিতিতে বিয়ের কাজ সম্পন্ন হয।

আটক প্রেমিকের নাম- আল মামুনুর রশিদ সরকার (২৬) সে ঠাকুরগাঁও জেলার হরিপুর উপজেলার ভাদুরিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আওযামী লীগ নেতা শাহজাহান আলী সরকারের ছেলে ও প্রেমিকার নাম দুলালী পারভীন (২৩) সে ঠাকুরগাঁও জেলার হরিপুর উপজেলার টেংরিয়া গ্রামের নাজিম উদ্দিনের মেয়ে ।

কোতয়ালী থানার এএসআই রুহুল আমিন জানান, দিনাজপুরের একটি আবাসিক হোটেলে স্বামী স্ত্রীর পরিচয় দিয়ে গত মঙ্গলবার রাতে রাত্রিযাপন করার সময় তাদেরকে আটক করা হয আটকের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা তারা একে অপরকে ভালবাসে বলে স্বীকার করে। পরবর্তীতে উভয় পক্ষের অভিভাবকদের অনুমতিক্রমে দিনাজপুর কোতোয়ালী থানায় ৮ লক্ষ টাকার দেনমোহর ধার্য করে বিয়ের কাজ সম্পন্ন করা হয়। পরবর্তীতে থানায় আটক করায় তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে ৫৪ ধারায় আটক দেখিয়ে আদালতে প্রেরণ করা হয়।

তিনি আরোও জানান, স্থানীয় কাজী আব্দুল গাফফার মিয়া থানায় উপস্থিত হয়ে ৮ লক্ষ টাকা দেনমহর ধায্য করে মেয়ের খালু মতিউর রহমানের উকালতিতে এই বিয়ের কাজ সম্পন্ন করা হয়।

স্থানীয় কাজী আব্দুল গাফফার মিযা জানান, উভয পক্ষের সম্মতি অনুযায়ী ইসলামী শরীয়ত মোতাবেক ৮ লক্ষ টাকা দেনমোহর ধার্য করে যৎ সামান্য টাকা কন্যাকে বুঝিয়ে দিয়ে বিয়ের কাজ সম্পন্ন করা হয়েছে।

বিয়ের সম্পূর্ণ হওযার পর স্থানীয গণ্যমান্য এবং একজন জনপ্রতিনিধির উপস্থিতিতে তাদের দাম্পত্য জীবন সুখী-সমৃদ্ধ জীবন কামনায় বিশেষ মোনাজাত করা হয।

দিনাজপুর পৌর এলাকার ৪ নম্বর ওযার্ড কাউন্সিলর রবিউল ইসলাম রবি জানান, তার উপস্থিতিতে ৮ লক্ষ টাকা দেন মোহর ধার্য করে ইসলামিক শরীয়ত মোতাবেক উভয় পক্ষের অভিভাবকের উপস্থিতিতে বিয়ের কাজ সম্পন্ন করা হয়।

দিনাজপুর কোতোয়ালী থানার ওসি রেজওযানুর রহিম কপোত-কপোতীর বিযরে সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন থানায় কোন বিয়ে হয়নি, আর থানা বিয়ের জায়গা নয়। আমরা আটক করে কোর্টে চালান দিয়েছি।

প্রেমিক যুগলকে দিনাজপুর জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আমলী আদালতে(সদর) চালান দেয়া হলে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট ইসমাইল হোসেন তাদেরকে জামিন প্রদান করেন।

এই পোস্টটি সমাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© ২০১৯, সংবাদ বাংলা
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: The IT King