মঙ্গলবার, অক্টোবর ১৯, ২০২১

admin | বিনোদন

প্রকাশ: শনিবার, অক্টোবর ১০, ২০২০

সুইৎজারল্যান্ড থেকে ফিরে বাবার কাজ করলেন মোনালি ঠাকুর

গত ৫ অক্টোবর হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত হন গায়ক-অভিনেতা শক্তি ঠাকুর। সোমবার সম্পন্ন হয় তাঁর শেষকৃত্য। বাবার মৃত্যুর খবর পেয়ে সে দিনই মোনালি স্বামী মাইককে নিয়ে সুইৎজারল্যান্ড থেকে রওনা হন ভারতের উদ্দেশ্যে। এসে পৌঁছোন ৭ অক্টোবর। তারপর নিয়মরীতি মেনে মৃত্যুর তিনদিন পর বাবার শ্রাদ্ধানুষ্ঠানে যোগ দেন।

দীর্ঘ লকডাউন জুড়ে মোনালি স্বামীর সঙ্গে বিদেশে ছিলেন। কখনও সাইক্লিং করে, কখনও ঘুরে বেড়িয়ে অবসর উপভোগ করেছেন গায়িকা। পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হতেই আসে দুঃসংবাদ। তারপরেই তড়িঘড়ি দেশে ফেরা।

বাবার মৃত্যুতে ভেঙে পড়েছেন মোনালি। ইনস্টাগ্রাম পোস্টে সেই ছাপ স্পষ্ট। বাবাকে নিয়ে দীর্ঘ পোস্ট শেষে লিখেছেন, “তোমার ছোটন তোমার কাছে আসবে ঠিক সময় মতো। আবার দেখা হবে। অনেক আদর।”  বাবাহীন জীবন যেন মেনে নিতে পারছেন না গায়িকা।

প্রথম সেরিব্রাল অ্যাটাকের পর থেকে ধীরে ধীরে নিজেকে গুটিয়ে নিতে শুরু করেন কিংবদন্তি গায়ক শক্তি ঠাকুর। তবে ছোট মেয়ে মোনালির বাংলা ও হিন্দি গানের জগতে অপরিসীম খ্যাতিতে খুশি ছিলেন তিনি। তাঁর বড় মেয়ের কথায়, “বোনকে নিয়ে বাবা ভীষণ তৃপ্ত। বলতেন, আমি যা করতে পারিনি, মোনালি করে দেখিয়ে দিল। জীবন সার্থক।” মোনালির কাছে বাবাই তাঁর সব চেয়ে বড় শিক্ষক, সমালোচক। বাবাকে হারিয়েছেন এ কথা যেন বিশ্বাস করেন না তাঁর ‘ছোটন’। বাবার স্মৃতিকে সঙ্গে রেখেই এ বার পথ চলা শুরু।