বিছানার নিচে পলিথিনে মোড়ানো নারীর লাশ

0
154

নৃশংসভাবে বাংলাদেশি এক নারী কর্মীকে লেবাননে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে। ওই নারী কর্মীর লাশ পলিথিনে মোড়ানো অবস্থায় উদ্ধার করেছে লেবানন পুলিশ। তার একটি হাত ও একটি পা বিছিন্ন অবস্থায় ছিল। গত শনিবার (৩০ নভেম্বর) লেবাননের স্থানীয় সময় রাত ৮টায় রাজধানী বৈরুতের আশরাফিয়ের হোটেল ডিও সংলগ্ন এলাকা থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহত ওই নারী কর্মীর নাম মিনু বেগম। তার বাড়ি ঢাকার আশুলিয়ায়। দেশে তার এলাকায় পায়েল নামে পরিচিত ছিলেন তিনি।

স্থানীয় বাংলাদেশিরা জানান, জামসেদ মিয়া ওরফে ফারুক নামের এক বাংলাদেশির সঙ্গে পায়েল গত তিন মাস ধরে একসঙ্গে বসবাস করে আসছিলেন। গত তিনদিন ধরে রুমের দরজা বন্ধ থাকায় রুম থেকে দুর্গন্ধ বের হচ্ছিল। পাশে থাকা অন্য বাংলাদেশিদের সন্দেহ হলে তারা বাসার মালিককে খবর দেয়। পরে বাসার মালিক রুমের দরজা খুলে বিছানার নিচে পলিথিনে মোড়ানো মিনু বেগমের মরদেহ দেখতে পায়। এ দিকে পুলিশ এসে মরদেহটি উদ্ধার করে নিয়ে যায়। যদিও ঘটনাস্থলের আশপাশে অনুসন্ধান চালিয়ে তার বিচ্ছিন্ন পা ও হাতটি পাওয়া যায়নি। অপর দিকে পায়েলের সঙ্গী ফারুক এখন পলাতক রয়েছে। তার খোঁজে এরই মধ্যে নানা স্থানে পুলিশি অভিযান শুরু হয়েছে। অভিযুক্ত ফারুকের বাড়ি কুমিল্লা জেলার সুরুজ নগর গ্রামে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here